ওয়ার্ডপ্রেস টিউটোরিয়াল A to Z (৪র্থ পর্ব)



আসসালামু আলাইকুম, সকলে কেমন আছেন? আশাকরি সবাই ভালো আছেন। আমিও আল্লাহর রহমতে অনেক ভালো আছি। আর যারা নিয়মিত ট্রিকবাজের সাথে থাকেন তাদের ভালো থাকারই কথা। কেননা, এখান থেকে আমরা প্রতিনিয়ত অনেক অজানা বিষয়গুলো জানতে ও শিখতে পারি। আমি আজকের পোষ্টে আপনাদের স্বাগতম জানাচ্ছি। আজ আমরা জানবো এডমিন প্যানেল পরিচিতি! লেখাই কোন ভুল থাকলে ক্ষমা করে দিবেন। তো চলুন শুরু করা যাক।

এডমিন প্যানেল পরিচিতি!
প্রথমে আপনার ওয়ার্ডপ্রেস সাইটে লগিন করুন। আপনার ওয়ার্ডপ্রেস সাইটে লগিন  পেজ ঠিকানা হবেঃ yoursitename.extesion/wp-login.php

লগিন এর পরে যে পেজটি পাবেন তা নিচের মত দেখতে পাবেন। বাই ডিফল্ট ওয়ার্ডপ্রেস সাইট বা ব্লগের ড্যাশবোর্ড প্যানেল।



এবার আসুন ধাপে ধাপে ড্যাশবোর্ড এর প্রতিটি সেকশনের সাথে পরিচিতি হইঃ

১. Dashboard: ওয়ার্ডপ্রেস সাইটে লগিন করেই আপনি যে পেজটি পাবেন সেটিকে ড্যাশবোর্ড বলে।
এই সেকশনে আপনি যা যা পাবেন তা হলোঃ
Home & Update.

  • Home: এই সেকশনের আওতায় আপনি আপনার সাইটের লগিন করেই যে পেজটি পাবেন তা উপরে দেখানো ড্যাশবোর্ড সেকশনের Home পার্ট।
  • Updates: এই মেন্যু থেকে আপনি আপনার ওয়ার্ডপ্রেস সাইটে আপনার ইন্সটল করা যেকোন প্লাগিন, থীম এবং ওয়ার্ডপ্রেস সিএমএস-টির নতুন কোন ভার্সন বের হলে তা জানতে এবং এই পেজ থেকে সরাসরি আপডেট করে নিতে পারবেন।



২. Posts: ওয়ার্ডপ্রেস সাইটে নতুন কোন লিখা দেওয়াকে পোস্ট বলে। এই সেকশনে আপনি যা যা পাচ্ছেনঃ All Post, Add New, Categories ও Tags.



  • All Posts: আপনি আপনার ওয়ার্ডপ্রেস সাইটে যত গুলো লিখা লিখবেন। সেটা সাময়িক সেভ করে রাখুন অথবা পাবলিশ করুন না কেন, সব গুলো All Posts সেকশনে পাবেন।
  • Add New: নতুন করে পোস্ট লিখতে Add New পেজের ব্যবহার হয়।
  • Categories: সাইটে লিখার জন্য আলাদা আলাদা বিভাগ করতে চাইলে Categories পেজের ব্যবহার হয়।
  • Tags: একই ধরনের লিখা, যেগুলো মুলত পোস্টে লিখার শেষে প্রদর্শন করাতে চাইলে Tags এর ব্যবহার করতে হয়। আপনি চাইলে Tag আগে থেকে তৈরি করে রাখতে পারেন। নয়তঃ আপনি পোস্ট লিখার সময়ও উল্লেখ করতে পারবেন।

৩. Media: পোস্টে কোন ছবি, ভিডিও বা অডিও যুক্ত করতে চাইলে ব্যবহার হয়। এই সেকশনে আপনি যা যা পাচ্ছেনঃ
Library ও Add New.



  • Library: আগে থেকে আপলোড করে রাখা কোন ছবি, ভিডিও বা অডিও Library থেকে পোস্টে যুক্ত করতে পারবেন।
  • Add New: নতুন করে কোন ছবি, ভিডিও বা অডিও যুক্ত করতে চাইলে Add New থেকে যুক্ত করতে পারবেন।

৪. Pages: এই সেকশনে আপনি যা যা পাচ্ছেনঃ All Pages ও Add New.



  • All Pages: আপনার সাইটের সকল পাতা এখানে পাবেন। যেমনঃ নীড়, সম্পর্কে, যোগাযোগ ইত্যাদি।
  • Add New: নতুন করে কোন পাতা ( Page ) এখানে যুক্ত করতে পারবেন।

৫. Comments: এই সেকশন থেকে আপনি আপনার সাইটে সকল মন্তব্য যাচাই – বাছাই, পাবলিশ এবং মুছে দিতে পারবেন।



৬. Appearance: Appearance বা সাজসজ্জা এটি ওয়ার্ডপ্রেস সাইটের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ একটি সেকশন। এই সেকশনে আপনি যা যা পাচ্ছেনঃ Themes, Customize, Widgets, Menus, Background এবং Theme Editor.



  • Theme: এখানে থেকে নতুন থীম যুক্ত এবং মুছে দিতে পারবেন।
  • Customize: এখানে থেকে থীম এর ডিজাইন দেখে চেঞ্জ করতে পারবেন।
  • Widgets: এখানে থেকে আপনার ওয়ার্ডপ্রেস সাইটের সাইডবারে উইজেট লাগাতে এবং মুছে দিতে পারবেন।
  • Menus: এখানে থেকে আপনি নতুন মেনু যোগ করতে পারবেন।
  • Background: সাইটের রং পরিবর্তন করতে ব্যবহার করা হয়।
  • Theme Editor: আপনার সাইটের সকল ফাইলকে এখানে থেকে সম্পাদন করতে পারবেন।

৭. Plugins: এমন একটি টুলস, যা দিয়ে আপনি অতি সহজেই আপনার সাইটে কাঙ্ক্ষিত অবস্থায় নিয়ে যেতে পারবেন। এটা নিয়ে পরবর্তী পোস্টে আলোচনা করব। এক ঝলক দেখে নিই এই সেকশনে আপনি কি কি পাচ্ছেনঃ Installed Plugins, Add New, Plugins Editor.



  • Installed Plugins: এখানে আপনি সাইটে ইন্সটল কৃত সব প্লাগিংস গুলো দেখতে পারবেন।
  • Add New: এখানে থেকে নতুন প্লাগিং যুক্ত করতে পারবেন।
  • Plugins Editor: এখানে থেকে প্লাগিংস সম্পাদন করতে পারবেন।

৮. Users: এখানে থেকে আপনি আপনার সাইটের ব্যবহারকারীদের নিয়ন্ত্রন করতে পারবেন। এই সেকশনে যা যা থাকছেঃ All Users, Add New, Your Profile.



  • All Users: এখানে থেকে আপনার সাইটের সব ব্যবহারকারীদের নিয়ন্ত্রন করতে এবং দেখতে পারবেন।
  • Add New: এখানে থেকে নতুন ব্যবহারকারী তৈরি করতে পারবেন।
  • Your Profile: এখানে থেকে সাইটে আপনার নিজের প্রোফাইল সম্পাদন করতে পারবেন।

৯. Tools: এই সেকশন থেকে আপনি আপনার সাইটের লেখা , ইমেজ, ছবি অন্য ব্লগে নিয়ে যেতে এবং অন্য সাইট থেকে আপনার সাইটে নিয়ে আসতে ও বুকমার্ক করতে পারবেন।



১০. Settings: এই সেকশনে থেকে আপনি আপনার সাইটের বিভিন্ন অংশের জন্য সেটিং করে নিতে পারবেন। যেহেতু পরবর্তী পোস্টে সেটিং নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করব তাই এই পোস্টে নতুন কিছু লিখলাম না।

 

আজ এখানেই শেষ করলাম কোথাও বুঝতে সমস্যা হলে কমেন্ট করুন।

আমার ফেসবুক লিংকঃ ক্লিক করুন
আমার পেজে লাইক দিয়ে আমাকে সাপোর্ট করুনঃ ক্লিক করুন

পরের পর্বে যা পাবেনঃ সেটিং সমুহ পরিচিতি।

যারা ফ্রীতে ওয়েবসাইট ডিজাইন করে নিতে চান তারা নিচের ফরম পুরন করুনঃ

লেখকঃ Freelancer Nurul